প্রোটন কাকে বলে? সহজেই প্রোটন সর্ম্পেকে বিস্তারিত শিখি।

প্রোটন কাকে বলে?

প্রোটন হল ভর যুক্ত একটি উপপরমাণুক কণা যা এক একক ধনাত্মক আধান বহন করে।

1920 সালে রাদারফোর্ড ক্রিস্টিনড এই ধনাত্মক কণিকার নামকরণ করেন প্রোটন। প্রোটন শব্দটি একটি গ্ৰীক শব্দ যার অর্থ প্রথম (first)।

প্রোটনের চিহ্ন:

প্রোটনকে প্রকাশ করা হয় p বা,

proton symbol

এখানে 1 দ্বারা প্রোটনের ভর বোঝানো হয়েছে এবং +1 দ্বারা প্রোটনের আধান বোঝানো হয়েছে।

প্রোটনের চার্জ:

একটি প্রোটনের চার্জ একটি ইলেকট্রনের চার্জের সমান কিন্তু বিপরীত আধান বিশিষ্ট।

প্রোটনের ভর:

ইলেকট্রন অপেক্ষা প্রোটনের ভর অনেক বেশি যা কিনা ইলেকট্রনের ভর অপেক্ষা ১৮৩৬ গুন বেশি। যদি ইলেকট্রনের ভর = m
অতএব ১ টি ইলেকট্রনের ভর+১টি প্রোটনের ভর=হাইড্রোজেন পরমানুর ভর।
বা m+1836m=1837m
অর্থাৎ একটি ইলেকট্রনের ভর অপেক্ষা একটি হাইড্রোজেন পরমাণুর ভর ১৮৩৭ গুণ বেশি।

পারমাণবিক ভর এককে ভর:

প্রোটনের ভর পারমাণবিক ভর এককে 1.007276 এবং গ্রাম এককে 1.637×10-24।থমাস এই ভর হিসাব করে একটি প্রোটনের ভর একটি ইলেকট্রনের ভরের 1837 বা 1835 গুণ বেশি।

প্রোটনের চার্জ/ ভর অনুপাত:

প্রোটনের চার্জ /ভর অনুপাত মান নির্ভর করে গ্যাসের প্রকৃতির উপর ।হাইড্রোজেন গ্যাসের জন্য এই মান সর্বোচ্চ দেখা যায়।

প্রোটনের অবস্থান:

প্রোটন কোন পরমাণুর নিউক্লিয়াসে (কেন্দ্রে) অবস্থান করে । আসলে প্রোটন হলো একটি H+1 অর্থাৎ হাইড্রোজেন পরমাণু থেকে একটি ইলেকট্রন সরিয়ে নিলেই প্রোটন পাওয়া যায়।

মৌলের সুস্থিতি:

যে সকল নিউক্লাইডে 2,8,20,28,50,82,126 টি প্রোটন বা নিউট্রন বা উভয় প্রকার এর নিউক্লিয়াস থাকে সেই সকল নিউক্লাইড যথেষ্ট বেশি স্থিতিশীল হয়। তাই 2,8,20,28,50,82,126 কে ম্যাজিক সংখ্যা বলে।

প্রোটনের শক্তি স্তর:

পরমাণুর বাইরে ইলেকট্রন সমূহ যেমন কতগুলো নির্দিষ্ট শক্তি স্তর থাকে, পরমাণুর ভিতর ও প্রোটন সমূহ তেমনি কতগুলো নির্দিষ্ট শক্তি স্তরে থাকে। যখনই কোন নির্দিষ্ট শক্তি স্তর সম্পূর্ণ হয় তখন তা বিশেষভাবে সুস্থিত হয়।

  • প্রোটন সংখ্যার আরেক নাম কি?

    কোন মৌলের প্রোটন সংখ্যাকে ঐ মৌলের মৌলিক পারমাণবিক সংখ্যা বলা হয়।

Spread the love

Leave a Comment