নিউমোনিয়া কি? কেন হয়? নিউমোনিয়া রোগের লক্ষণ ও প্রতিকার।

নিউমোনিয়া(pneumonia) ফুসফুসের প্রদাহ জনিত একটি রোগ। ফুসফুসের প্যারেনকাইমার প্রদাহ হয়ে থাকে এই রোগে আক্রান্ত হলে। ভাইরাস, ব্যাকটেরিয়া, ছত্রাক সংক্রমণের কারণে নিউমোনিয়া হয়। নিউমোনিয়া হালকা থেকে জীবনহানিকর হতে পারে ।নিউমোনিয়া থেকে ফ্লু হবার সম্ভাবনা বেশি হয়।

নিউমোনিয়া সাধারণত বয়স্ক ব্যক্তিদের হয় ।যারা দীর্ঘদিন রোগে ভুগছেন অথবা যাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা কম তাদের মধ্যে বেশি দেখা দেয়। তবে তরুণ ,অল্প বয়স্ক ,স্বাস্থ্যবান লোকদেরও নিউমোনিয়া হয়। ফুসফুসের টিস্যু বা কলার প্রদাহকে নিউমোনিয়া বলে।

নিউমোনিয়া রোগের জীবাণুর নাম কি?

ব্যাকটেরিয়া -নিউমক্কাশ
ক্লিপসিলা নিউমোনি
হিমোফিলাস ইনফ্লুয়েন্সি
ভাইরাস -এডেনো ভাইরাস
ইনফ্লুয়েন্সি ভাইরাস
ছত্রাক- ক্যানডিডা এলবিকানস
মাইকোপ্লাজমা ইত্যাদি আক্রমণে নিউমোনিয়া হয় ‌।

নিউমোনিয়া রোগের লক্ষণ

pneumonia
pneumonia

নিউমোনিয়া রোগের লক্ষণ সমূহ হলো:

১. জ্বর।
২. কাশি।
৩. শ্বাসকষ্ট।
৪. কাঁপুনি হয়।
৫. ঘাম হওয়া ।
৬. বুকে ব্যথা শ্বাস-প্রশ্বাসের সাথে উঠানামা করা

৭. মাথাব্যথা করা।
৮. মাংসপেশিতে ব্যথা অনুভুত হওয়া।
৯. ক্লান্ত অনুভব করা।

নিউমোনিয়া রোগের প্রতিকার

  • ভালোভাবে পরিষ্কার করে হাত পা ধুতে হবে
  • নিজের প্রতি যত্ন নিতে হবে
  • পর্যাপ্ত বিশ্রাম নিতে হবে
  • সুষম খাদ্য গ্রহণ করতে হবে
  • ধূমপান জাতীয় খাবার থেকে বিরত থাকতে হবে
  • অন্যের সামনে হাঁচি কাশি দেওয়া থেকে বিরত থাকতে হবে
  • হাঁচি কাশি দেওয়ার সময় মুখ হাত দিয়ে ঢাকতে হবে অথবা রুমাল, টিস্যু ব্যবহার করতে হবে।

একিউট লোবার নিউমোনিয়া সাধারণত নিউমকক্কাস ব্যাকটেরিয়া দ্বারা হয়।

একিউট লোবার নিউমোনিয়া রোগের লক্ষণ ও উপসর্গ

  • শীত শীত লাগে কাঁপুনি শুরু হয় হঠাৎ করে।
  • জ্বর খুব বেশি এবং প্রচন্ড বুক ব্যথা থাকে।
  • শুকনো কাশি, ব্যথাযুক্ত, পরে থুথুযুক্ত কাশি হয়, থুথু আঠাযুক্ত এবং ইটের রঙের মতো থুতুর সঙ্গে রক্ত আসতে পারে।
  • শরীর ম্যাজ ম্যাজ করে ,দুর্বলতা মাথাব্যথা এবং সারা শরীরে ব্যথা অনুভূত হয়।
  • নাড়ির স্পন্দন দ্রুত হয়।
  • শ্বাস-প্রশ্বাস খুব দ্রুত হয় হারপেস লেবিয়ালিস সাধারণত দেখা যায়।
  • শ্বাস দ্রুত হতে থাকে।
  • বুকের প্রসারতা কমে যায়।

নিউমোনিয়া রোগের চিকিৎসা

নিউমোনিয়া চিকিৎসা
নিউমোনিয়া চিকিৎসা
  • পর্যাপ্ত বিশ্রাম নিতে হবে
  • জ্বর এবং ব্যথার জন্য প্যারাসিটামল
  • শ্বাসকষ্ট থাকলে মাথা উঁচু করে সোয়াতে হবে অক্সিজেন দিতে হবে
  • কাশির জন্য ফলকোডিন সিরাপ।

নিউমোনিয়া রোগের ওষুধ

এন্টিবায়োটিক- (penicillin, cephalexin, Erythromycin, Gentamycin) এগুলোর মধ্যে যেকোনো একটি বা বেশি হলে একাধিক ওষুধ একত্রে ব্যবহার করতে হবে চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী।

(বি. দ্র. চিকিৎসকের পরামর্শ অনুযায়ী ঔষধ সেবন করবেন)

  • নিউমোনিয়া ইংরেজি বানান কী?

    নিউমোনিয়া in English “pneumonia”

Spread the love

Leave a Comment